বাংলাদেশে প্রথম ট্যুরিজম ভিত্তিক নিউজ পোর্টাল|রবিবার, ডিসেম্বর ৯, ২০১৮
সাইটে আপনার অবস্থানঃ Home » প্রযুক্তি » ‘অ্যাপিকটা অ্যাওয়ার্ডস’ প্রতিযোগিতা ডিসেম্বরে

‘অ্যাপিকটা অ্যাওয়ার্ডস’ প্রতিযোগিতা ডিসেম্বরে 

Print Friendly, PDF & Email

2017-09-19_22_474094

চলতি বছর ৭ থেকে ১০ ডিসেম্বর বাংলাদেশে ‘অ্যাপিকটা অ্যাওয়ার্ডস’ প্রতিযোগিতা অনুষ্ঠিত হবে। বেসিস ন্যাশনাল আইসিটি অ্যাওয়ার্ডস-এর সেরা প্রকল্পগুলোকে অ্যাপিকটা অ্যাওয়ার্ডসের জন্য মনোনীত করা হবে।
মঙ্গলবার ঢাকায় বাংলাদেশ অ্যাসোসিয়েশন অব সফটওয়্যার অ্যান্ড ইনফরমেশন সার্ভিসেস (বেসিস) সূত্রে একথা জানা গেছে।
বেসিস সূত্রে জানা যায়, বাংলাদেশ অ্যাসোসিয়েশন অব সফটওয়্যার অ্যান্ড ইনফরমেশন সার্ভিসেস (বেসিস) আয়োজিত ‘বেসিস ন্যাশনাল আইসিটি অ্যাওয়ার্ডস ২০১৭’ এর চূড়ান্ত বাছাই পর্ব চলছে এবং ১৯ ও ২০ সেপ্টেম্বর বেসিস কার্যালয়ে আয়োজিত বাছাই পর্বের মাধ্যমে বিজয়ী নির্বাচন করা হবে। ‘বেসিস ন্যাশনাল আইসিটি অ্যাওয়ার্ডস’ এর সেরা প্রকল্পগুলোকে অ্যাপিকটা অ্যাওয়ার্ডসে মনোনীত করা হবে।
উল্লেখ্য, এবছর ১৭টি ক্যাটাগরিতে মোট ৩৬৫টি প্রকল্প জমা পড়ে। সেখান থেকে বিচারকরা ১৮১টি প্রকল্প চূড়ান্ত বাছাই পর্বের জন্য মনোনীত করেন। ৪০ জন বিচারক সংশ্লিষ্টদের প্রেজেন্টেশন ও যাবতীয় ডকুমেন্টেশন পর্যালোচনার মাধ্যমে চূড়ান্ত বিজয়ী নির্বাচন করবেন। আন্তর্জাতিক মানের যাচাই-বাছাই প্রক্রিয়ার মাধ্যমে এই প্রতিযোগিতায় ১৭টি ক্যাটাগরিতে মোট ৫১টি প্রকল্পকে বিজয়ী ঘোষণা করা হবে।
বেসিস ন্যাশনাল আইসিটি অ্যাওয়ার্ডসের আহ্বায়ক ও বেসিস পরিচালক এম রাশিদুল হাসান বলেন, এশিয়া প্যাসিফিক অঞ্চলের তথ্যপ্রযুক্তি খাতের বৃহত্তম সংগঠন এশিয়া প্যাসিফিক আইসিটি অ্যালায়েন্স (অ্যাপিকটা)।
তিনি বলেন, ‘আগামী ৭ থেকে ১০ ডিসেম্বর ২০১৭ তারিখে বাংলাদেশে অনুষ্ঠিত হবে অ্যাপিকটা অ্যাওয়ার্ডস। বেসিস ন্যাশনাল আইসিটি অ্যাওয়ার্ডস এর সেরা প্রকল্পগুলোকে অ্যাপিকটা অ্যাওয়ার্ডসে মনোনীত করা হবে’।
বেসিস সভাপতি মোস্তাফা জব্বার বলেন, ‘২০১৫ সালে অ্যাপিকটার সদস্য হওয়া বেসিসের জন্য বাংলাদেশে অ্যাপিকটা অ্যাওয়ার্ডস আয়োজন একটি বিশাল অর্জন। জাপান থেকে অস্ট্রেলিয়া পর্যন্ত বিস্তৃত ১৬টি দেশের প্রতিযোগিতার এই আয়োজন বাংলাদেশকে বিরল সম্মান এনে দিচ্ছে’।
তিনি বলেন, এতে প্রায় দুই শতাধিক প্রতিযোগি ১৭টি ক্যাটাগরিতে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করে থাকে।
বাংলাদেশকে তথ্যপ্রযুক্তিকে বিশ্বব্যাপী পরিচিত করাতে ও রপ্তানীর বাজার বাড়াতে এই আয়োজন ব্যাপকভাবে সহায়তা করবে।

এই ক্যাটাগরীর অন্যান্য সংবাদ সমূহঃ

শেয়ার করুন !!Share on FacebookTweet about this on TwitterShare on Google+Share on LinkedInShare on RedditBuffer this pageDigg thisShare on TumblrPin on PinterestShare on StumbleUponFlattr the authorEmail this to someone