বাংলাদেশে প্রথম ট্যুরিজম ভিত্তিক নিউজ পোর্টাল|রবিবার, জানুয়ারি ২০, ২০১৯
সাইটে আপনার অবস্থানঃ Home » লাইফ স্টাইল » টাইফয়েড জ্বর হলে কী করবেন

টাইফয়েড জ্বর হলে কী করবেন 

Print Friendly, PDF & Email

লাইফস্টাইল ডেস্কঃ      টাইফয়েড জ্বর স্যালমোনেলা জীবাণু দ্বারা হয়ে থাকে। সাধারণত দূষিত খাবার এবং পানির মাধ্যমে এ রোগের জীবাণু ছড়ায়। আক্রান্ত ব্যক্তির সংস্পর্শে এলেও এ রোগ হতে পারে। এ রোগের কারণে তীব্র জ্বর, মাথা ব্যথা, পেট ব্যথা, বমি, কোষ্ঠকাঠিন্য অথবা ডায়রিয়া হয়। tai

টাইফয়েড জ্বরের প্রাথমিক লক্ষণ : ১০৩-১০৪ ফারেনহাইট (৩৯.৪ অথবা ৪০ সে.) জ্বর, মাথা ব্যথা, দুর্বল এবং অবসাদবোধ করা, গলা ব্যথা, পেট ব্যথা, ডায়রিয়া অথবা কোষ্ঠকাঠিন্য ও চামড়ায় লালচে দানা দেখা দেয়।

কখন ডাক্তার দেখাবেন :  টাইফয়েড জ্বর হয়েছে সন্দেহ হলেই ডাক্তারের কাছে যাবেন। এছাড়া উপরোক্ত লক্ষণ দেখা দেওয়া মাত্র ডাক্তারের কাছে যেতে হবে।

কোথায় চিকিৎসা করাবেন :  উপজেলা স্বাস্থ্য কেন্দ্র ও

স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স, জেলা সদর হাসপাতাল এবং বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয়।

পথ্য :  পর্যাপ্ত তরল এবং স্বাস্থ্যকর ও সুষম খাবার খেতে হবে।

পরীক্ষা-নিরীক্ষা : রোগের ইতিহাস জানা এবং রক্ত, প্রস্রাব-পায়খানা ও অস্থিমজ্জা (ইড়হব গধৎৎড়)ি পরীক্ষা।

চিকিৎসা :  অ্যান্টিবায়োটিক সেবন, পানিশূন্যতা দেখা দিলে শিরার মাধ্যমে তরল খাবার এবং উচ্চ ক্যালোরিসম্পন্ন সুষম খাবার গ্রহণ করতে হবে।

প্রতিরোধ : নিরাপদ ও বিশুদ্ধ পানি পান করা, খাবার তৈরি এবং গ্রহণের পূর্বে ভালোভাবে হাত ধোয়া এবং স্বাস্থ্যসম্মত পায়খানা ব্যবহার, মলমূত্র ব্যবহারের পর সাবান/ছাই দিয়ে হাত ধোয়া, কাঁচা বা অপরিষ্কার শাক-সবজি ও ফলমূল গ্রহণ করা থেকে বিরত থাকা, খাবার গরম করে খাওয়া, ঘরের জিনিসপত্র নিয়মিত পরিষ্কার করা, টাইফয়েডে আক্রান্ত ব্যক্তি অন্যের জন্য খাবার  তৈরি থেকে বিরত থাকা এবং আক্রান্ত ব্যক্তির ব্যক্তিগত ব্যবহার্য দ্রব্যাদি আলাদা করে রাখা।

এই ক্যাটাগরীর অন্যান্য সংবাদ সমূহঃ

শেয়ার করুন !!Share on FacebookTweet about this on TwitterShare on Google+Share on LinkedInShare on RedditBuffer this pageDigg thisShare on TumblrPin on PinterestShare on StumbleUponFlattr the authorEmail this to someone